Why Vietnaam is important to India

Advertisements

Special Topic – Why Vietnam is important to India

Topic Discussed – Why Vietnam is important to India – Sahajpath Classes

সম্প্রতি ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোভিন্দ ভিয়েতনাম সফরে গিয়েছিলেন। আজ আমরা বিস্তারিত ভাবে জানতে পারব তার সফর কতটা সফল এবং এই সফর ভারতের কাছে কতটা গুরুত্বপূর্ণ।

প্রথমে আমরা ভিয়েতনাম দেশটি সম্পর্কে জেনে নেবো।

  • আমরা জানি, পৃথিবীতে মোট ৭ টি মহাদেশ রয়েছে। মহাদেশগুলো হল এশিয়া, ইউরোপ, আফ্রিকা, উত্তর আমেরিকা, দক্ষিণ আমেরিকা, আন্টার্কটিকা, ও অস্ট্রেলিয়া। এদের মধ্যে এশিয়া মহাদেশ এ মোট ৪৮ টি দেশ রয়েছে। আর ভিয়েতনাম হলো এশিয়া মহাদেশের অন্তর্গত একটি দেশ।

World Map

  • সরকারী নামSocialist Republic of Viet Nam.
  • অবস্থান – Socialist Republic of Viet Nam দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার একটি দেশ।
  • এর উত্তরে চীন, উত্তর পশ্চিমে লাওস, দক্ষিণ পশ্চিমে কম্বোডিয়া এবং পূর্ব দিকে দক্ষিণ চীন সাগর অবস্থিত। বৌদ্ধ ধর্ম এখনকার প্রধান ধর্ম এবং এই ধর্মের দিক দিয়ে এটি পৃথিবীর তৃতীয় বৃহত্তম দেশ (চীন এবং জাপান এর পর)। ভিয়েতনাম Associaiton of South East Asean Nation (ASEAN) এবং Asia-Pacific Economic Cooperation (APEC) এর সক্রিয় সদস্য। (২০১৮ সালের APEC এর মিটিং হয়েছিল পাপুয়া নিউ গিনি তে) ।

C:\Users\user\Desktop\Pygathrix-cinerea-map-vietnam(1).jpg

  • Form of Government – Unitary Marxist-Leninist one-party socialist republic
  • Unitary – এখানে কেন্দ্র সরকার ই সর্বেসর্বা ।
  • Marxist-Leninist –
  • মার্কসবাদ (Marxism) এই তত্ব হল ঊনবিংশ শতাব্দীর দার্শনিক, অর্থনীতিবিদ, সাংবাদিক এবং বিপ্লবী কার্ল মার্কস ও ফ্রিডরিখ এঙ্গেলসের তত্ত্বের ওপর ভিত্তি করে গড়ে ওঠা এক রাজনৈতিক অনুশীলন ও সামাজিক তত্ত্ব। মার্কসবাদ তত্বের মূল কথা হল মালিক শ্রেণির শোষণ, নির্যাতন, নিপীড়ন তথা মজুরি-দাসত্ব থেকে শ্রমিক শ্রেণির মানুষের মুক্তির মতবাদ।
  • লেলিনবাদ (Leninist) – রাশিয়ার দার্শনিক ও রাজনীতিবিদ ভ্লাদিমির লেলিন এর মতাদর্শের উপর ভিত্তি করে এই তত্বের উত্পত্তি। এটি হচ্ছে শ্রমিক শ্রেণির একনায়কত্বের মতবাদ ও রণকৌশল। সমগ্র বিশ্বে শ্রমিক ও শোষিত মানুষের উন্নতিতে এটি একটি আন্তর্জাতিক মতবাদ।
  • রাজধানী – Hanoi
  • বৃহত্তম শহর – Ho Chi Minh City.
  • অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ শহর – Hue, Da Nang, Nha Trang, Haiphong ইত্যাদি ।
  • গঠন – ৫৮ টি Province এবং ৫ টি কেন্দ্র সরকার পরিচালিত পৌরসভা নিয়ে ভিয়েতনাম এর জনসংখ্যা প্রায় ৯.৫ কোটি
  • প্রধান মন্ত্রী – এনগুয়েন জুয়াং ফুক (Nguyễn Xuân Phúc) ।
  • Legislature – National Assembly.
  • স্বাধীনতা দিবস – ফ্রান্স থেকে ২ সেপ্টেম্বর, ১৯৪৫ সালে এই দেশ স্বাধীনতা পায় ।
  • সরকারী ভাষা – Vietnamese.
  • মুদ্রা – Dong.

এবারে আমরা জেনে নেবো ভারতের রাষ্ট্রপতি রাম নাথ কোভিন্দ এর সাম্প্রতিক ভিয়েতনাম সফর নিয়ে। ভারতের বিদেশনীতি তে যে Look East Program আছে তার বাস্তবায়নে বর্তমান সরকার একে Act East Program এ রূপান্তরিত করেছে। ভারত প্ৰাচীন কাল থেকে পাশ্চাত্য দেশ গুলির অর্থাৎ পশ্চিমের দেশগুলির সঙ্গে ব্যাবসা করে এসেছে। তাই এই Look East Program এর উদ্দেশ্য একটাই তা হলো পূর্বের দেশগুলি অর্থাৎ মায়ানমার, ভিয়েতনাম, লাওস, কম্বোডিয়া ইত্যাদি দেশগুলির সঙ্গে বাণিজ্য ও রপ্তানিতে ভারতকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। তাই তার বাস্তবায়নে Act East Program এর সূচনা।

এই Act East Program এর বাস্তবায়নে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোভিন্দ এর প্রথম পছন্দ ছিল ভিয়েতনাম।

ভিয়েতনাম এর সঙ্গে ভারতের সুসম্পর্ক প্রায় ৭০ বছরের পুরনো। ভিয়েতনাম এর My Son নামে একটি স্থান রয়েছে যেখানে শিব মন্দির ও অন্যান্য হিন্দু মন্দির রয়েছে এবং এটি UNESCO দ্বারা স্বীকৃত World Heritage Site। উল্লেখ করা যায় সত্তরের দশকে আমেরিকা ভিয়েতনাম যুদ্ধে এটি খুব ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ভারতের the Archeological Survey of India এই স্থান টির পুনরুদ্ধার এর চেষ্টায় ভিয়েতনাম সরকারের সঙ্গে হাত মিলিয়ে কাজ করছে। রাষ্ট্রপতি রাম নাথ কোভিন্দ প্রথমেই এই স্থান দর্শন করতে যান।

সত্তরের দশকে আমেরিকা ভিয়েতনাম যুদ্ধে ভিয়েতনাম খুব ক্ষতিগ্রস্ত হয়। তাই এর পর রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক ভাবে বিপর্যয় থেকে দই মই পলিসি (Doi Moi Policy) অনুসরন করে এবং প্রচুর উন্নতি করে। এই নীতি অনুযায়ী ভিয়েতনাম প্রতিবেশী ও অন্যান্য দেশ গুলির সঙ্গে পুরোনো সব শত্রুতা ভুলে ব্যবসা ও বাণিজ্যের হাত বাড়িয়ে দেয়। এমন কি আমেরিকা ও চীনের সঙ্গেও ভালো সম্পর্ক বজায় রাখে। এর ফলে যেখানে ভিয়েতনাম আগে কৃষিজ দ্রব্য আমদানি করতো সেখানে এখন বাইরের দেশে রপ্তানি করতে শুরু করেছে।

রাষ্ট্রপতি ভিয়েতনামে গিয়ে নিচের চারটি MoU সাক্ষর করেছেন-

  • দুদেশের মধ্যে যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি
  • বাণিজ্যিক সুসম্পর্ক গড়ে তোলা এবং দুদেশের বিদেশ নীতির মধ্যে সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দেওয়া
  • শিক্ষার উন্নতিতে দুদেশের পরস্পরিক সহযোগিতা
  • Confederation of Indian Industry (CII) এবং Vietnam Chamber of Commerce and Industry (VCCI) এর মধ্যে সহযোগিতা

কিন্তু ভারত সরকার চেয়েছিল ভিয়েতনাম কে line of credit (এক ধরনের লোন) বর্তমান ১০০ মিলিয়ন ডলার থেকে বাড়িয়ে ৫০০ মিলিয়ন ডলার করবে। যদিও তা সফল হয় নি। এই প্রসঙ্গে, ভিয়েতনাম, এর জন্য আরো সময় নিতে চেয়েছে তাদের সিদ্ধান্ত জানানোর জন্য। উল্লেখ করা যায়, ভিয়েতনাম এটা চায় না যে তারা তাদের বিদেশ থেকে লোন এর পরিমাণ মোট GDP এর 50 শতাংশ এর অধিক বাড়ুক।

ভিয়েতনাম কেন ভারতের জন্য গুরুত্বপূর্ণ-

  • ভিয়েতনামে প্রচুর Hydro Carbon এর ভান্ডার রয়েছে। ভারতীয় সংস্থা ONGC ভিয়েতনাম এর সঙ্গে হাত মিলিয়ে দক্ষিণ চীন সাগরে এর সন্ধানে খোঁজ চালিয়ে যাচ্ছে। যদিও চীন এই খোঁজ এর বিরোধিতা প্রথম থেকে করে আসছে।
  • এছাড়াও ভারত-মায়ানমার-থাইল্যান্ড Highway প্রজেক্ট এর মাধ্যমে দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার বিভিন্ন দেশে ভারতীয় দ্রব্য রফতানি তে ভারত যথেষ্ট আশাবাদী। সেই সঙ্গে এই রুট এর সঙ্গে যদি লাওস, কম্বোডিয়া এবং ভিয়েতনাম কে জুড়ে দেওয়া যায় তাহলে তা ভারতীয় অর্থনীতি তে বিশেষ ভূমিকা রাখবে।
  • দুদেশীয় প্রতিরক্ষা সহযোগিতা এবং সম্পর্ক বাড়িয়ে তোলা। আর সেকারনে রাষ্ট্রপতি রাম নাথ কোবিন্দ এর পর ভারতীয় সেনা প্রধান জেনারেল বিপিন রাবত (Bipin Rawat) ভিয়েতনামে গিয়েছেন। ভারত ভিয়েতনাম কে নিচের দুটি মিসাইল ব্যবহারের জন্যে অফার দিয়েছে – BrahMos Supersonic Cruise Missiles এবং Akash surface to air Missile defence systems.

পরবর্তীতে আমরা ভিয়েতনাম এর সঙ্গে ভারতের বিদেশনীতি ও অন্যান্য সম্পর্ক নিয়ে আবার আলোচনা করবো যখনই আমরা কোনো নতুন কিছু জানতে পারবো।

Thank You.

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × 3 =

error:
Scroll to Top